সর্বশেষসারাদেশ

সাভারে বিদেশী ফুলের নামে চাষ করা হচ্ছে গাঁজা , পুলিশকে বোকা বানিয়ে চম্পট অপরাধী চক্র ।

উঁচু প্রাচীর তৈরি করে সাভারে দুই বিঘা জমিতে চাষ করা হতো গাজা ‌। এবং নিজেদের নিরাপত্তা বৃদ্ধিতে অপরাধীরা ব্যবহার করত সিসি ক্যামেরা ।

গাঁজার চাষ প্রক্রিয়া শুরু হওয়ার তিন মাস পর এখবর পৌঁছায় পুলিশের কাছে কিন্তু তাতেও কোন লাভ হয়নি , কেননা পুলিশকে ধোকা দিয়ে চম্পট অপরাধী চক্র ।

পরম যত্ন করে প্রাচীরঘেরা দুই বিঘা জমিতে বিদেশি ফুলের নামে চাষ করা হতো গাঁজা , ‌ চক্র টি নিজেদের নিরাপত্তার স্বার্থে জমির চারিদিকে বসিয়েছিল সিসি ক্যামেরা ।

এমনই একটি অভিযোগ পুলিশের কাছে গেলেই কালবিলম্ব না করে অভিযান চালায় আশুলিয়া থানা , কিন্তু পুলিশ অপরাধী চক্র কে আটক করলে তারা দাবি করে গাজা নয় ফুল চাষ করছেন তারা ।

গাজা নয় ফুল চাষ করছেন তারা বাগান কর্তৃপক্ষের এমন শক্ত অবস্থানের জন্য পুলিশ তখনও স্পষ্ট হতে পারছে না এটা বিদেশী কোন জাতের ফুল নাকি গাজা , পরবর্তীতে ৫০০ চারা জব্দ করে নমুনা সংগ্রহ করে পাঠানো হয় ল্যাবে ।

ঠিক যখন গাজার নমুনা পরীক্ষা করতে ব্যস্ত CID ঠিক তখনই কৌশল করে সটকে পড়ে অপরাধীরা । যতক্ষণে নিশ্চিত হলো গোয়েন্দা বিভাগ ততক্ষনে লাপাত্তা পুরো গাজা চাষি চক্র ।

এই বিষয়ে আইনজীবীরা বলছেন পুলিশের উদাসীনতার কারণে লাপাত্তা হতে সক্ষম হয়েছে অপরাধীরা । ব্যস্ত লোকালয়ে এমন গাঁজা চাষ এটা ভেবে হতবাক স্থানীয় বাসিন্দারা ।

স্থানীয়রা বলছে ফুল চাষের নামে গাঁজা চাষ এই বিষয় সম্বন্ধে যখন পুলিশের জানতে তিন মাস সময় লেগে যায় , নিশ্চয়ই এমন একটি ঘটনা পুলিশ বা গোয়েন্দা সংস্থার একটি গাফিলতির দিক ।

এ বিষয়ে পুলিশ বলছে আমরা জানতে পেরেছি তেল তৈরি করার জন্য প্লান্টেক নামে একটি প্রতিষ্ঠান এমন কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত রয়েছে ।

ট্যাগ

আরও পড়তে পারেন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *